স্বাধীনতার পর প্রধানমন্ত্রীর ভাষণের সম্প্রচার পাক সীমান্ত অবধি

স্বাধীনতার পর প্রধানমন্ত্রীর ভাষণের সম্প্রচার পাক সীমান্ত অবধি
আজবাংলা   ৭২ বছর পর এই প্রথমবার। লালকেল্লা থেকে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণের সম্প্রচার সরাসরি দেখা যাবে কাশ্মীরের ভারত- পাক সীমান্তের একেবারে শেষ গ্রাম কেরান অবধি। এক সংবাদমাধ্যমের সূত্র অনুযায়ী, ৭২ বছর পর্যন্ত কেরানর গ্রামে কোনরকম বিদ্যুৎ ছিল না৷ এই কিছুদিন আগে গ্রামে বিদ্যুৎ এসেছে। আগে শুধুমাত্র সন্ধে ৬টা থেকে ৯টা অবধি কিষান নদীর ধারে জেনারেটরের বসিয়ে গ্রামে বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হত৷ এখন কেরান গ্রামে সদস্য সংখ্যা ১২ হাজারের বেশি। এই গ্রামে ৬ মাস জম্মু এবং কাশ্মীরের কুপওয়ারার থেকে যাতায়াত ও যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়৷ এখানে ঠাণ্ডার সময়ে বরফ জমে থাকার দরুন অন্য গ্রামে পৌছনো বা সেখান থেকে কোথাও যাওয়া আসা করাই অসম্ভব হয়ে যায়৷ সেইজন্য, বিআরও ঐ গ্রামের সাথে অন্য গ্রামের জাওয়ার সংযোগকারী নতুন রাস্তা করে দিয়েছে।  তাই, এবার বরফ পড়লেও মানুষের যাতায়াতের কোনরকম অসুবিধা হবে না বলেই দাবি প্রশাসনের তরফ থেকে৷ ওই কুপওয়ারা জেলার সঙ্গে পাকিস্তানের সাথে ১৭০ কিলোমিটারের রেখা আছে৷ এই রাস্তা দিয়ে মাঝেমধেই অনুপ্রবেশকারীরা ঢোকে৷ জম্মু-কাশ্মীর প্রশাসনের দাবি অনুসারে, গত বছর থেকে কেন্দ্রশাসিত এলাকা হিসেবে ঘোষিত হওয়ার পর থেকেই অনুন্নত এবং দুর্গম জায়গাগুলিতে ভালমতন উন্নয়নের কাজ শুরু হয়েছে। এছাড়া এরইমধ্যেই ৫৯৭৯ কোটি টাকা মূল্যের ২২৭৩টি প্রকল্প অনুমোদন করা হয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী৷ তাছাড়া আরও ৫০৬টি প্রকল্প ইতিমধ্যেই শেষ হয়েছে।