পরীক্ষার আগে যে নিয়মগুলি মেনে চললে ভালো হবে পরীক্ষার রেজাল্ট

পরীক্ষা
পরীক্ষা

আজবাংলা সন্তানদের নিয়ে চিন্তিত থাকেন সব বাবা, মা-ই । তাদের অন্যতম চিন্তা হল সন্তানের লেখাপড়া। কেউ বলেন, ছেলে মেয়ে একদম পড়তে বসে না। কেউ আবার সারা দিন বই নিয়ে বসে থেকেও মনে রাখতে পারছে না কিছুই। কেউ বলেন, পরীক্ষা এলেই শরীর খারাপ হয়ে পড়ে সন্তানের। কারোর মতে, পরীক্ষা ভাল দিলেও রেজাল্ট মনমতো হয় না। এই রকম হাজার হাজার সমস্যা নিয়ে বাবা-মা’রা ভীষণ চিন্তিত। ভাল রেজাল্ট করতে গেলে মন দিয়ে পড়াশোনা তো করতেই হবে। তবে এর সঙ্গে আরও কিছু নিয়ম, পদ্ধতি অনুসরণ করা ভীষণ ভাবে দরকার। তেমনই কিছু পরামর্শ:

পূর্ব দিকে মুখ করে বসে পড়াশোনা করা ভাল।

বাড়ির উত্তর-পূর্বের ঘরে এবং ঘরের উত্তর-পূর্ব কোণে বসে পড়াশোনা করলে রেজাল্ট ভাল হয়।

পড়ার টেবিলের উপর সবুজ কাপড় বা রেক্সিন বিছিয়ে তার ওপর কাচ দিয়ে দিলে ভাল।

পড়ার টেবিলের ওপর ক্রিস্টাল বল ঝুলিয়ে দিন। বলটি রোজ একটু রোদে রাখতে পারলে ভাল।

নীল সরস্বতী কবচ অথবা অষ্টবিনায়ক কবচ ধারণ করলে ফল ভাল হয়।

চারমুখী রুদ্রাক্ষ অথবা গণেশ রুদ্রাক্ষ ধারণে ফল ভাল হয়।

সরস্বতী যন্ত্রম এবং গণেশ যন্ত্রম স্থাপন করে নিত্য ধূপ দেখিয়ে পূজো করলে ফল ভাল হয়।

পড়ার টেবিলের উপর কাচের গ্লাসে জল রেখে তার মধ্যে কয়েকটা মুক্তো রেখে দিলে ভাল রেজাল্ট হয় এবং পরীক্ষার্থীর মনের টেনশন কাটায়।

কয়েকটা পেন্সিল ছুলে সূচলো মুখটা উপর দিক করে রেখে দিন কাচের গ্লাসের মধ্যে। মেধার তীব্রতা বাড়বে।

দশা-অন্তদশার গ্রহদের জপ, যজ্ঞ ও গ্রহশান্তি করালে রেজাল্ট ভাল হবে।

এমন সমস্ত আপডেট পেতে লাইক দিন!