কন্ডোম ব্যবহারের সময় এইগুলি মাথায় না রাখলেই সর্বনাশ!!

কন্ডোম ব্যবহারের সময় এইগুলি মাথায় না রাখলেই সর্বনাশ!!

আজ বাংলা     নিরাপদ যৌন জীবন উপভোগ করতে গিয়ে অনেকেই ভরসা করেন কন্ডোমে কিন্তু কিছু ভুল ধারণার বশবর্তী হয়ে অনেক সময়েই ডেকে আনেন বিপদ ৷ যৌনতা নিয়ে আমাদের দেশে নানা ধরণের ট্যাবু রয়েছে ৷ এই বিষয়টি নিয়ে খোলাখুলি কথা বলতে কেউ তেমন আগ্রহী নয়৷ এমনকী, এই নিয়ে কোনও ধরণের প্রবন্ধ পড়া হলে, মানুষ তা বেশিরভাগ সময়ই গোপন করে থাকেন ৷ আর এর থেকেই জন্মায় ভুল ধারনা, ভুল তথ্য পেয়ে অনেক সময়ই মানুষ ডেকে আনেন বিপদ ৷ ঠিক যেমন, কন্ডোম নিয়ে মানুষের মধ্যে রয়েছে নানা ভুল ধারণা৷ বলা যায়, কিছু কিছু ভুল তথ্যও।

প্রায় নিষিদ্ধ বস্তুর তকমা কন্ডোমের গায়ে ৷ তাই তা নিয়ে লুকোচুরিও শেষ নেই ৷ এই গোপনীয়তা রক্ষার উদ্যোগেই ডেকে আনতে পারে যৌন জীবনে বিপদ ৷ কখনও মানিব্যাগের লুকনো পকেটে বা আলমারিতে জামাকাপড়ের স্তূপের নীচে বা কখনও ব্যাগের গোপন কুঠুরিতে লুকিয়ে রাখা হয় কন্ডোম ৷ এতে হ্রাস পায় কন্ডোমের কার্যকারিতা ৷

অধিকাংশ পুরুষই মানিব্যাগের কোনও এক ফাঁকে কন্ডোম রেখে দেন। সেখানে কন্ডোম রাখলে, তা বসার সময় ঘষা লেগে ফুটো হয়ে যেতে পারে। গরমে তাপমাত্রায় হারাতে পারে কন্ডোমের কার্যকারিতাও। একই অবস্থা হতে পারে আলমারিতে জিনিসপত্রের নীচে কন্ডোম লুকিয়ে রাখলেও ৷ অতিরিক্ত তাপে ও চাপে বেশিরভাগ সময় নষ্ট হয়ে যায় কন্ডোম ৷ ব্যাগের কোণাতে রাখা কন্ডোমও নিরাপদ নয় ৷ ব্যাগের মধ্যেকার বাকি জিনিসের খোঁচায় ফুটো হয়ে যেতে পারে কন্ডোম ৷

আর্দ্রতা, সূর্যের আলোয় ক্ষতিগ্রস্থ হয় কন্ডোম ৷ এছাড়া ব্যবহারের আগে কন্ডোমের এক্সপায়ারি ডেট খেয়াল রাখুন ৷ মেয়াদ উত্তীর্ণ কন্ডোমে মূল উদ্দেশ্যই ব্যাহত হবে ৷ একইসঙ্গে রয়েছে ইনফেকশনের চান্সও ৷ অনেকেরই ভ্রান্ত ধারণা, সঙ্গম চুড়ান্ত পর্যায়ে পৌঁছলে কন্ডোম পরলেই চলে। এতে কিন্তু সমস্যা কম হয় না। যৌনক্রিয়া ক্লাইম্যাক্সে পৌঁছনোর আগেই শুক্রাণুরা প্রবেশ করতে শুরু করে নারীর যৌনাঙ্গে। সঙ্গম চলাকালীনই শুক্রাণুরা একে একে বেরোতে থাকে। ফলে শুরু থেকেই কন্ডোম পরে নেওয়া ভালো।