সুশান্তের মৃত্যু না মানতে পেরে অভিনেতার বিহারের বাড়িতে নানা পটেকর

আজবাংলা       সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু নিয়ে এবার মুখ খুললেন অভিনেতা নানা পটেকর৷ রবিবার বিহারের ভোজপুরে সিআরপিএফ-এর ৪৭ নম্বর ব্যাটেলিয়নের ক্যাম্পে পৌঁছন নানা পটেকর৷ সেখানেই সুশান্তের মৃত্যু নিয়ে শোকপ্রকাশ করেন তিনি৷ ভোজপুরে সিআরপিএফ ক্যাম্পে গিয়ে বেশ কিছুক্ষণ কাটান নানা পটেকর৷ আধা সেনা জওয়ানদের মনোবল বৃদ্ধির চেষ্টা করেন তিনি৷ সিআরপিএফ জওয়ানদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন অভিনেতা৷ তিনি বলেন যাঁদের মধ্যে পরিশ্রম করার মানসিকতা, ইচ্ছা এবং দেশপ্রেম থাকে, তাঁদেরই সেনা উর্দি পরার সৌভাগ্য হয়৷ সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পর বার বারই বলিউডে স্বজনপোষণের অভিযোগ উঠেছে৷ নানা পটেকর অবশ্য মনে করেন, বহিরাগত হলেই যে বলিউডে জায়গা হয় না, এমন ধারণা ঠিক নয়৷ নিজের উদাহরণ দিয়ে তিনি বলেন, তাঁর মতো চেহারা এবং কথা বলার ধরন নিয়েও তিনি বলিউডে টিকে গিয়েছেন৷ নানা পটেকর বলেন, তিনি মাঝমধ্যেই রেগে যান, বিরক্ত হন৷ তা সত্ত্বেও বলিউড তাঁকে গ্রহণ করেছে৷ নানা পটেকর আরও বলেন, বলিউডে তিনি কখনওই এক নম্বর জায়গা দখল করেননি৷ আর এখন তো পরিস্থিতি আরও বদলে গিয়েছে৷ তিনি বলেন, 'আমি কখনও কোনও ফাংশন বা পার্টিতে যাই না৷ মুখের উপরে সত্যিটা বলে দিই৷ বলিউডে দলবাজি অবশ্যই আছে, কিন্তু আপনার কাছে প্রতিভা থাকলে নিজের জায়গা তৈরি করে নেওয়া যায়৷ যে যত খুশি দলবাজি করুক না কেন, আপনার মধ্যে কিছু করার ক্ষমতা থাকলে সাফল্য আসবেই৷'সুশান্তের মৃত্যু রীতিমতো নাড়িয়ে দিয়েছে নানা পটেকরকে৷ তিনি বলেন, 'সুশান্ত একজন অসাধারণ প্রতিভাবান অভিনেতা ছিল৷ ওর অভিনয়ের মধ্যেই তা ফুটে উঠত৷ ও যে নেই সেটা আমার বিশ্বাস হচ্ছে না৷ আমার মনে হচ্ছে যেন নিজের ছেলেকে হারিয়েছি৷ ওর মৃত্যুর খবর আমার বিশ্বাস হচ্ছে না৷ সুশান্তের মতো এত অল্প বয়সি ছেলে আরও ৩০ বছর কাজ করতে পারত৷ এমন ছেলে খুব কমই দেখা যায়৷'