করোনার পরিস্থিতিতে LG নিয়ে এলো এয়ার পিউরিফায়ার ফেস মাস্ক। জানুন বিস্তারিতভাবে

করোনার পরিস্থিতিতে LG নিয়ে এলো এয়ার পিউরিফায়ার ফেস মাস্ক। জানুন বিস্তারিতভাবে

আজবাংলা  মহামারী করোনার সংক্রমণ ঠেকানোর জন্য হাত পরিস্কার রাখতে স্যানিটাইজার ও মুখের জন্য মাস্ক পড়ার নির্দেশ দিয়েছেন ডাক্তাররা। এর পাশাপাশি রাস্তাঘাট বাজারর ক্ষেত্রেও অন্তত পক্ষে ২ মিটারের মতন দূরত্ব বজায় রাখার নির্দেশ দিয়েছেন WHO। কিন্তু সম্প্রতি শুরু হয়েছে আনলক ৪। এই পরিস্থিতিতে আশা করাই যায়, বাড়ির বাইরে আরো বেশি করে পা বাড়াবেন প্রত্যেক মানুষ। এই অবস্থায় নিজের সুরক্ষা নিজেকেই নিতে হবে। এখন বাজারে নানা ধরনের ফেস মাস্কে বেরিয়েছে। কিন্তু ডাক্তাররা মনে করছে, সেই সকল বেশিদিন ব্যবহার করা যাবে না। খুব বেশিদিন হলে ১ সপ্তাহ। এছাড়া, সার্জিকাল মাস্কের ক্ষেত্রে বলা হয়েছে এক দিনের বেশি একটা মাস্ক পড়া যাবে না।

এমন অবস্থায়, মাস্কের সুরক্ষার বাড়াতে LG নিয়ে এক নতুন আধুনিক ডিভাইস। এই ডিভাইসের দ্বারা আপনি সহজেই বাড়ির বাইরে করোনাকে এড়িয়ে চলতে পারবেন। এই নতুন ডিভাইসটির নাম হল LG এয়ার পিউরিফায়ার যুক্ত ফেস মাস্ক (LG PuriCare Wearable Air Purifier Face Mask)। এই মাস্কটি আপনি অনায়াসে পুনর্ব্যবহারযোগ্য করতে পারবেন।LG সংস্থার দাবি, এই মাস্ক সম্পূর্ণ চার্জেবল। এটি টানা ৮ ঘণ্টা ব্যবহার করা যাবে। সূত্র মারফৎ জানা গিয়েছে, সেপ্টেম্বরের মধ্যেই লঞ্চ করা হবে ভারতের বাজারে।

সংস্থা লঞ্চের সময়েই এই মাস্কের দাম প্রকাশ করবে। বায়ুকে পরিশুদ্ধ করতে এই মাস্ক H13, HEPA নামক এই ফিল্টারগুলি ব্যবহার করেছে। এর পাশাপাশি, এই ফেস মাস্কে তিন স্পিড লেভেল যুক্ত ডুয়েল ফ্যান ব্যবহার করা হয়েছে। যেগুলি শ্বাস-প্রশ্বাসের সময় স্বয়ংক্রিয় ভাবে কাজ করবে।LG র এই মাস্কটিতে একটি ৮২০ mAh এর ব্যাটারিও আছে। যেটির সাহায্যে অন মোডে ৮ ঘণ্টা পর্যন্ত, আর হাই মোডে ২ ঘণ্টা পর্যন্ত টানা সক্রিয় ভাবে কাজ করবে। মাস্কের ফিল্টারটি সময় মত পরিবর্তন করাও যাবে। কখন প্রয়োজন, তা LG থিন কিউ অ্যাপের দ্বারা জানিয়ে দেবে গ্রাহককে।